শনিবার, ২৫-নভেম্বর ২০১৭, ০৪:২৩ পূর্বাহ্ন
  • প্রবাস
  • »
  • লেবাননে বিএনপির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

লেবাননে বিএনপির প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী পালিত

sheershanews24.com

প্রকাশ : ১২ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ১১:৫৪ অপরাহ্ন

শীর্ষনিউজ, লেবানন: লেবাননে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী দল বিএনপির উদ্যোগে দলের ৩৯তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা হয়েছে।

রোববার বিকেলে রাজধানী বৈরুতের হামরায় প্রবাস বাংলা হোটেলে আয়োজিত আলোচনা সভায় লেবানন বিএনপির ভারপ্রাপ্ত সভাপতি নজরুল ইসলাম মজুমদারের সভাপতিত্বে ও সাংগঠনিক সম্পাদক হাবিবুর রহমানের সঞ্চালনায় সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন, লেবানন বিএনপির সাবেক সভাপতি বিল্লাল হোসেন বেপারী।

বিশেষ অতিথি ছিলেন, সাধারণ সম্পাদক জাকির হোসেন, প্রধান উপদেষ্টা আমীর হোসেন কলিম, প্রতিষ্ঠাতা সদস্য আব্দুল হালিম, উপদেষ্টা রুহুল আমীন, মানিক মোল্লা, সহসভাপতি আমিনুল ইসলাম আইমান, আবু বক্কর, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মুজিবল হক, সহসাধারণ সম্পাদক ওয়াসীম আকরামসহ অনেকে।

সভায় বক্তারা বলেন, লেবানন বিএনপিতে চামচিকা ঢুকেছে। কতিপয় নেতা লেবানন আওয়ামী লীগের সাথে আতাত করে। আওয়ামী লীগের মঞ্চে বসারও প্রমাণ রয়েছে। এমনকি দূতাবাসের সামনে আওয়ামী লীগের আন্দোলনে উপস্থিত ছিল। আরো অনেক প্রমাণ থাকা সত্যেও লেবানন বিএনপি এ সকল নেতাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ করছে না। বরং দলের কিছু নেতা তাদের পক্ষ নিয়ে কথা বলছেন।  

নেতৃবৃন্দ এ সকল চামচিকা মার্কা নেতাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণ না করার প্রতিবাদ জানান এবং অতি আল্প সময়ে এদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানান।

বক্তারা বলেন, গত কিছু দিন পূর্বে লেবানন বিএনপিকে নিয়ে লেবানন আওয়ামী লীগের এক গ্রুপ দেশে বিদেশ অপ-প্রচার চালায়। আওয়ামী মনোভাবি সংগঠন বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা কল্যাণ ও পূনর্বাসন সোসাইটি নামে একটি সংগঠনের ব্যানারে চালানো হয় লেবানন বিএনপির নামে মিথ্যা ও বানোয়াট অপপ্রচার। লেবাননের সবাই জানে রাষ্ট্রদূতের দুর্নীতি নিয়ে লেবানন আওয়ামী লীগের এক পক্ষ বাংলাদেশ সরকারের নিকট চিঠি দেন। আর সেই খবর ছরিয়ে পড়লে আওয়ামী লীগরে আরেক গ্রুপ রাষ্ট্রদূতের পক্ষ নেয়। এনিয়ে লেবাননে চলে আওয়ামী লীগের তিন গ্রুপের কাদা ছুড়াছুড়ি। এ নিয়ে লেবানন আওয়ামী লীগের বাবুল মুন্সি গ্রুপের এক নেতা ও বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা কল্যাণ ও পুনর্বাসন সোসাইটির  মাসুদুর রহমান বাদল নামে এক লোক লেবানন বিএনপির বিরুদ্ধে এ অপপ্রচার চালায়।

নেতৃবৃন্দ বলেন, এতো কিছু লেবানন বিএনপিতে হবার পরও বিএনপির আওয়ামী মনোভাবী নেতারা এর কোনও প্রতিবাদ করেননি। বরং সহযোগিতা করেছেন।

বক্তারা এ সকল নেতাদের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানায় এবং আওয়ামী লীগ ও বাংলাদেশ মুক্তিযোদ্ধা কল্যাণ ও পুনর্বাসন সোসাইটিকে লেবানন বিএনপির বিরুদ্ধে এমন মিথ্যা অপপ্রচারের প্রতিবাদ জানায় ও ভবিষ্যতে এমন কাজ না করার জন্য শতর্ক করে দেন।

আলোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে ভারপ্রাপ্ত সভাপতি মোহাম্মদ নজরুল ইসলাম মজুমদার বলেন, গণতন্ত্রের নেত্রী, দেশের ১৬ কোটি মানুষের নেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে স্বৈরাচারি শেখ হাসিনার পতনের মাধ্যমে বাংলাদেশে গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠিত হবে। বাংলাদেশের মানুষ ফিরে পাবে তাদের গণতান্ত্রিক অধিকার।

তিনি আরো বলেন, বিএনপি অতিতে যেমন জনগণকে সঙ্গে নিয়ে স্বৈরশাসন-গণতন্ত্রবিরোধী অপশক্তির চ্যালেঞ্জকে দৃঢ়তার সঙ্গে মোকাবিলা করে গণতন্ত্রকে পুনরুদ্ধার করেছিল। ভবিষ্যতেও জাতীয়-রাজনৈতিক সংকটে দেশনায়ক তারেক রহমানের নেতৃত্বে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা অব্যাহত রাখবে এবং বিএনপির নেতৃত্বেই গণতন্ত্র পুনরুদ্ধার হবে।

সহসভাপতি আমিনুল ইসলাম আইমান বলেন, স্বাধীনতার পর থেকে বাংলাদেশের রাজনীতির ইতিহাসে বিএনপি ৫বার রাষ্টীয় ক্ষমতায় জনগণের বিপুল সমর্থন নিয়ে এসে দেশের উন্নয়ন উৎপাদনে এক বিরল ইতিহাস সৃষ্টি করে দলের প্রতিষ্ঠাতা শহিদ রাষ্টপতি জিয়াউর রহমান বিশ্বনেতাদের সাথে সুসম্পর্ক গড়ে তুলেন। তার ধারাবাহিকতায় আগামী দিনের বাংলাদেশের ভবিষ্যৎ কর্ণধার বিএনপির সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানও বর্তমান বিশ্বনেতাদের সাথে সম্পর্ক গড়ে তুলেছেন। বিএনপি আবারো রাষ্ট্র ক্ষমতায় এসে দেশে জন্য কাজ করবে।

সভায় বক্তব্য রাখেন, সহসাধারণ সম্পাদক জাহাঙ্গীর হোসেন সুমন, দপ্তর সম্পাদক আবদুর রহিম মতিন, সহসাংগঠনিক সম্পাদক আরমান হোসেন, ইকবাল হোসেন ভূঁইয়া, ইয়াকুব আলী, মোতালেব হোসেন, মোহাম্মদ মনির আলমগির দেওয়ান, পিন্টুসহ প্রমুখ।

শীর্ষনিউজ/প্রতিনিধি/এইচএস