সোমবার, ২৫-সেপ্টেম্বর ২০১৭, ১০:৫৯ অপরাহ্ন
  • জাতীয়
  • »
  • রায়ের পর্যবেক্ষণ বাতিলে আইনি পদক্ষেপ নেয়ার দাবি সংসদে
সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী

রায়ের পর্যবেক্ষণ বাতিলে আইনি পদক্ষেপ নেয়ার দাবি সংসদে

প্রকাশ : ১৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৭ ০৬:০৯ অপরাহ্ন

শীর্ষনিউজ, ঢাকা : সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায়ে সুপ্রিমকোর্টের দেয়া পর্যবেক্ষণের কিছু কিছু বিষয় আপত্তিকর বলে উল্লেখ করে তা বাতিলের দাবি উঠেছে জাতীয় সংসদে।
আজ সন্ধ্যায় জাতীয় সংসদে বক্তৃতাকালে কয়েকজন সদস্য এ দাবি জানান।
সন্ধ্যায় প্রথমে এ দাবিতে বক্তব্য রাখেন জাতীয় সমাজতান্ত্রিক দলের সদস্য মইন উদ্দীন খান বাদল। তিনি তাঁর বক্তব্যে প্রধান বিচারপতির তীব্র সমালোচনা করেন। তিনি বলেন, প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহার নেতৃত্বাধীন সুপ্রিমকোর্টের আপিল বিভাগের বেঞ্চ কর্তৃক সংবিধানের ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায়ে দেয়া পর্যবেক্ষণের কিছু আপত্তিকর মন্তব্য করা হয়েছে, এগুলো বাতিল করতে আইনি পদক্ষেপ গ্রহণ করতে হবে।
মইন উদ্দীন খান বাদলের বক্তব্যের পর প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহাকে উদ্দেশ্য করে দীর্ঘ বক্তৃতা করেন আওয়ামী লীগ উপদেষ্ট পরিষদ সদস্য ও বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ। তিনি বলেন, ‘আপনাকে (সিনহা) আমি শ্রদ্ধা করি, কথা কম বলুন, কারণ কথা কম বলা ভালো।’ তোফায়েল আহমেদ বলেন, আপনার আগেও অনেকে প্রধান বিচারপতি হয়েছেন, তারা তো এতো কথা বলেননি।
তোফায়েল আহমেদ বলেন, আমাদের সংবিধানে বলা হয়েছে, জনগণই সকল ক্ষমতার উৎস। আর এই জনগণের ভোটে নির্বাচিতরাই এই সংসদের সদস্য। যখন কেউ এই সংসদকে হেয় করে, ছোট করে কথা বলে তখন কষ্ট হয়, জনগণও কষ্ট পায়।
ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের পূর্ণাঙগ রায় প্রকাশের আগে যাদেরকে অ্যামিকাস কিউরি (আদালতের বন্ধু) নিয়োগ দেয়া হয়েছে তাদের সমালোচনা করে তোফায়েল আহমেদ বলেন, তারা কারা, যাদেরকে আপনি অ্যামিকাস কিউরি হিসেবে নিয়োগ দিয়েছে? এরা ছাড়া আর কাউকে আদালতের বন্ধু হিসেবে পাওয়া যায়নি। এরা তো কেউ আওয়ামী লীগ করেন না। তিনি ড. কামাল হোসেনের সমালোচনা করে বলেন,  উনি আওয়ামী লীগের শত্রু, প্রধানমন্ত্রীর শত্রু। এছাড়া ব্যরিস্টার আমিরুল ইসলাম, রোকনউদ্দিন মাহমুদ, এ জে মাহমুদ আলী, হাসান আরিফ, ফিদা কামাল, আবদুল ওয়াদুদ, টিএইচ খান, মিস্টার ফারুকী ও আজমল হোসেন এর নাম উল্লেখ করে তোফায়েল আহমেদ একজন ছাড়া বাকীদের সমালোচনা করেন।
তোফায়েল আমহেদ বলেন , এরা কারা সবাই জানেন।
রায়ের পর্যবেক্ষণে সংসদ, বঙ্গবন্ধু, নির্বাহী বিভাগ সহ যেসব মন্তব্য সংসদের কাছে আপত্তিকর তা বাতিলে আইনমন্ত্রীকে যথাযথ আইনি পদক্ষেপ নেয়ার অনুরোধ করেন তোফায়েল আহমেদ।
সংসদ সদস্য ফজিলতুন্নেছা বাপ্পি ষোড়শ সংশোধনী বাতিলের রায়ে দেয়া পর্যবেক্ষণ বাতিলের দাবি জানান, একই সঙ্গে তিনি প্রধান বিচারপতির তীব্র সমালোচনা করেন।

শীর্ষনিউজ/এসএসআই